সিলেটে করোনার টিকা নিলেন যারা

প্রকাশিত: 1:10 PM, February 7, 2021

সিলেটে করোনার টিকা নিলেন যারা

নিউজ ডেস্কঃ বিপুল উৎসাহ আর উদ্দীপনার মধ্যে দিয়ে সিলেটে আজ রবিবার শুরু হয়েছে করোনার টিকা দেয়া কার্যক্রম। টিকা নেয়ার জন্য সম্মুখসারির যোদ্ধাসহ বিভিন্ন শ্রেণী-পেশার মানুষ সিলেট ওসমানী মেডিক্যাল কলেজের হাসপাতালে এসেছিলেন। এছাড়াও পুলিশ লাইনে করোনার টিকা নেন সিলেট পুলিশের উচ্চপদস্থ কর্মকর্তারা।

সম্মুখসারির যোদ্ধা হিসেবে যারা টিকা নিয়েছেন তারা হলেন-সিলেটের বিভাগীয় কমিশনার মো. মশিউর রহমান এনডিসি, সিলেটের জেলা প্রশাসক এম কাজী এমদাদুল ইসলাম, সিলেট ওসমানী মেডিক্যাল কলেজের ভাইস প্রিন্সিপাল অধ্যাপক শিশির চক্রবর্তী, সিলেট জেলা পুলিশ সুপার মোহাম্মদ ফরিদ উদ্দিন, সিলেট জেলা প্রেসক্লাবের সভাপতি আল আজাদ, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মাহবুব, সিলেটের সিভিল সার্জন প্রেমানন্দ মন্ডল, সিলেট ওসমানী মেডিক্যালের কার্ডিওলজি বিভাগের প্রধান ডা. শাহবুদ্দিন, ওসমানী মেডিক্যাল কলেজের সহকারী অধ্যাপক ডা. আজিজুর রহমান রোমান, হাসপাতালের সেবিকা রাখি রানী সাহা, সিটি কাউন্সিলর তৌফিক বক্স লিপন, ইলিয়াছুর রহমান ইলিয়াছ।

সিলেট সিটি কর্পোরেশনের (সিসিক) প্রধান স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডা. জাহিদুর রহমান জানান, সিলেট নগরীতে ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল ও পুলিশ লাইন্স হাসপাতালে করোনার টিকা দেয়া হবে। ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ১২টি বুথে থাকবে ১২টি টিম। এখানে দৈনিক ১ হাজার ২০০ জনকে ভ্যাকসিন দেওয়ার সক্ষমতা আছে। 

এছাড়া পুলিশ লাইন্স হাসপাতালে একটি বুথে থাকবে একটি টিম। প্রতিটি টিমে স্বেচ্ছাসেবক, সেবিকা ও চিকিৎসক থাকছেন।

স্বাস্থ্য বিভাগ সিলেটের সহকারী পরিচালক ডা. আনিসুর রহমান জানান, সিলেট বিভাগে এক মাসে ২ লাখ ৬৮ হাজার ৮৮ জনকে করোনা ভ্যাকসিন দেয়ার লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ করা হয়েছে। এর মধ্যে সিলেটে ১ লাখ ১৫ হাজার ৪৭টি ভ্যাকসিনের চাহিদা ছাড়াও সুনামগঞ্জে ৯০ হাজার, হবিগঞ্জে ৩৫ হাজার ৪১ এবং মৌলভীবাজারে ২৮ হাজার চাহিদা রয়েছে। পর্যায়ক্রমে এ চাহিদা আরও বাড়ানো হবে বলে জানান তিনি।

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ